Wednesday, December 14, 2016

বাংলাদেশের হৃদয় হতে
তন্ময় বীর

বুলেট এসে লেগেছে এই হাতে বুকে মুখে চোখে
এর পর আর কে লিখতে পারে, অন্তত শান্তিতে
রক্তপায়ী ওই কোন দেশপ্রেমী ধর্মপ্রাণ ঈশ্বরের সেনাপতি
উল্লাসে ফেটে পড়ে শস্ত্রের, আঁধারের, মৃত্যুর কারবারি
এর পর কে ভাবতে পারে ছন্দের সুরের বাঁধন
ধারালো ধাতব সটান এসে বসেছে গভীরে
এখনও শুকায়নি সে বজ্র বিদ্যুৎ কান্নার দাগ
সেই চোখে এর পর কে দেখে ভোরের স্বপন
যদি কেউ এর পর মানুষকে অবিশ্বাস করে
যদি কেউ এর পর মনুষ্যত্বে বিশ্বাস হারায়
কাটা শির কাকে আর কবিতা শোনাবো
যন্ত্রণায় নীল নিথর নির্বাক চুল থেকে নখ
কি লিখব, কি বলব চুপ করে থাকা
তাও কি পোষায় সাদা কালো গোয়েরনিকা
শাহাবুদ্দিন, ওরকম সুতীব্র যদি মৃত্যুর দিকে ছোটে 
অন্ধ অস্পষ্ট সমগ্র আগামীর শরীর বল্গাহীন
কথা যদি না শোনে লালনের বিশ্বস্ত একতারা
গাড়ি যদি সত্যি সত্যি না চলে করিম
বড়ো অন্ধকার বিষম ভাবনা বুঝে ওঠা দায়
পদ্মা মেঘনা তিস্তায় ডুবন্ত নাও ঝিলমিল
কোন দূরবিনে পথ দেখে মাঝি নিশ্চিত বাঁচায়
মরীচিকা অন্ধকার মুর্শিদ, ক্রমশ বাড়ে আঁচড়ায়
জীবনের প্রেমহীন প্রান্তরে, সিং দরজায়
মৃত্যু এসে চেপেছ দুই কাঁধ, ত্রাসের হানাদারি 
সেই হাতে এর বেশি আর কী লিখতে পারি
                   


০২/০৭/২০১৬     

No comments:

Post a Comment